বাস্তব জীবনে-পর্দায়ও মা হিসেবে তারা সফল

0
44

বাস্তব জীবনের মা তো বটেই, বড় ও ছোট পর্দায়ও মা হিসেবে সফল তারা। মায়াবী অভিনয় দিয়ে তারা এতোটাই সফল যে, দর্শক তাদের মায়ের মতোই আপন ভাবেন।

রোববার (০৯ মে) বিশ্ব মা দিবস। এ উপলক্ষে পর্দার মায়েদের নিয়ে এই আয়োজন-

আনোয়ারা
নৃত্যশিল্পী হিসেবে ক্যারিয়ার শুরু করলেও একসময় অভিনয়ে থিতু হন অভিনেত্রী আনোয়ারা। নায়িকা হিসেবে বড় পর্দায় সফল তিনি। তবে পরবর্তী মায়ের চরিত্রে অভিনয় করে ব্যাপক জনপ্রিয়তা পান এই কিংবদন্তি। বাংলাদেশে সর্বাধিক সিনেমাতে মায়ের ভূমিকায় অভিনয় করা জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারপ্রাপ্ত অভিনেত্রী আনোয়ারা। নতুন-পুরনো মিলিয়ে পর্দায় দেশের বেশিরভাগ নায়ক-নায়িকারই মা হতে দেখা গেছে তাকে।

দিলারা জামান
ষাটের দশকে অভিনয় ক্যারিয়ার শুরু দিলারা জামানের। শুরুতে কেন্দ্রীয় চরিত্রগুলোতে অভিনয় করে প্রশংসা পান তিনি। কিন্তু বয়স বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে মা চরিত্রে পর্দায় জনপ্রিয় উঠেন তিনি। ছোটপর্দায় বেশি অভিনয় করেন দিলারা জামান। তবে বড় পর্দাতেও অভিনয় করতে দেখা গেছে একুশে পদকে ভূষিত এই অভিনেত্রীকে।

খালেদা আক্তার কল্পনা
৩৭ বছরের ক্যারিয়ারে প্রায় পাঁচ শতাধিক সিনেমায় অভিনয় করেছেন খালেদা আক্তার কল্পনা। পর্দায় মা হিসেবে বেশ সফল একজন অভিনেত্রী তিনি। বহু হিট সিনেমায় তাকে মা চরিত্রে অভিনয় করতে দেখা গেছে। তবে শারীরিক অসুস্থতার কারণে এখন আর অভিনয় করতে পারেন না তিনি।

শর্মিলী আহমেদ
মা চরিত্রের আরেকজন জনপ্রিয় অভিনেত্রী শর্মিলী আহমেদ। প্রায় ৮০০ নাটকে মা হিসেবে দেখা গেছে তাকে। অবস্থা এমন দাঁড়িয়ে যে, বিনোদনজগতের সবাই এখন তাকে মা বলেই ডাকেন। ষাটের দশকে নায়িকা হিসেবে চলচ্চিত্রে আগমন ঘটে তার। তবে ছোট পর্দাতেই বেশি দেখা যায় তাকে।

ডলি জহুর
মা চরিত্রে অভিনয় করে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার বিজয়ী পেয়েছেন ডলি জহুর। সত্তরের দশকে সিনেমার মাধ্যমে তার ক্যারিয়ার শুরু। দীর্ঘদিন ধরে মায়ের চরিত্রে তিনি দাপটের সঙ্গে বড় ও ছোট পর্দায় বিচরণ করছেন। প্রয়াত নায়ক সালমান শাহ অভিনীত বেশির ভাগ সিনেমা ও নাটকে মা হিসেবে পাওয়া গেছে ডলি জহুরকে।

শাবানা
কিংবদন্তি অভিনেত্রী শাবানা নায়িকা হিসেবে তুমুল জনপ্রিয়। ‘সত্যের মৃত্যু নেই’ সিনেমায় প্রথমবার তাকে মা হিসেবে পাওয়া যায়। সিনেমাটিতে তিনি দারুণ প্রশংসিত হন। নায়িকার মতো মা হিসেবেও আবেগময়ী ভূমিকায় তিনি ছিলেন অপ্রতিদ্বন্দ্বী। এরপর বেশকিছু সিনেমায় তাকে মা চরিত্রে পাওয়া গেলেও সে সংখ্যা তত দীর্ঘ নয়। বর্তমানে অভিনয়কে বিদায় জানিয়ে স্থায়ীভাবে বসবাস করছেন যুক্তরাষ্ট্রে।

ববিতা
নায়িকা হিসেবে সত্তরের দশকে পর্দায় যাত্রা শুরু করেন ববিতা। নব্বই দশকের দিকে তাকে মায়ের চরিত্রে অভিনয় করতে দেখা যায়। পেয়েছেন জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারও। তবে ২০১৫ সালের থেকে তাকে আর অভিনয়ে পাওয়া যায় না।

রেহানা জলি
আশির দশকের মাঝামাঝি সময়ে রেহানা জলির চলচ্চিত্রে যাত্রা শুরু হয়। পর্দায় বহু নায়ক-নায়িকার মা হয়েছেন তিনিও। ৪১ বছরের দীর্ঘ ক্যারিয়ার তার। তবে মাঝে প্রচণ্ড অসুস্থ হয়ে বছরখানিক ক্যামেরা থেকে দূরে ছিলেন তিনি। চলতি বছর অসুস্থতা কাটিয়ে আবারও অভিনয় ফিরেছেন ঢাকাই সিনেমার মা চরিত্রের এই জনপ্রিয় অভিনেত্রী।

এছাড়া প্রয়াত অভিনেত্রীদের মধ্যে রওশন জামিল, রোজী আফসারী, মায়া হাজারিকা, রানী সরকার, আয়েশা আখতার, সুমিতা দেবী, সুলতানা জামান, রিনা আকরাম, মিনু রহমান ছিলেন মায়ের ভূমিকায় বেশ দক্ষ। অন্যদিকে রাশেদা চৌধুরী, নূতন, মিরানা জামান, সারা যাকের, সুচরিতা, সুজাতা, রিনা খান, রেবেকাসহ অনেকেই মায়ের চরিত্রে অভিনয় করে সফল হয়েছেন।

NO COMMENTS

LEAVE A REPLY