২০২১-এর ‘রাশিফলে’ ভয় বার্সেলোনা-রিয়াল-লিভারপুলের

0
23

খেলাধুলা ডেস্ক: এসি মিলান, ইন্টার মিলান, আতলেতিকো মাদ্রিদ, লিওঁ, লিল, লাইপজিগ…এই মৌসুমে কি ইউরোপের ফুটবলের খোলনলচে বদলে যাচ্ছে? বার্সেলোনা, রিয়াল মাদ্রিদ, বায়ার্ন মিউনিখ, পিএসজি, জুভেন্টাসের মতো দলগুলোর একাধিপত্য খর্ব হবে?

করোনা মহামারির কারণে গত বছরে মাস তিনেক খেলা বন্ধ ছিল। সেটির প্রভাব পড়েছে ইউরোপের ফুটবলের এই মৌসুমের সূচিতে। প্রাক-মৌসুম বলে কিছু ছিল না, সূচি হয়ে পড়েছে ঠাসা আর সেটির দায় টানতে হচ্ছে খেলোয়াড়দের। একের পর এক খেলোয়াড় পড়ছেন চোটে। ইউরোপের ফুটবলে কি সেটিরই প্রভাব পড়ছে?

ফুটবলের পরিসংখ্যান নিয়ে কাজ করা ওয়েবসাইট স্ট্যাটসপারফর্মের আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্সের বিশ্লেষণ আর ভবিষ্যদ্বাণী তো তেমনই ইঙ্গিত দেয়। প্রতিটি দলের আক্রমণ ও রক্ষণের মান বিবেচনা করে লিগের প্রতিটি ম্যাচের সম্ভাব্য ফল ধরে হিসাব করছে স্ট্যাটসপারফর্ম। এই মৌসুমে ইউরোপের সেরা পাঁচ লিগে কারা শিরোপা জিততে পারে, কোন দল কততম হতে পারে, প্রত্যাশিত পয়েন্ট মডেলের ভিত্তিতে হিসাব করে সেটি বের করে। বার্সা, রিয়াল, লিভারপুল, জুভেন্টাসের মতো দলগুলোর জন্য সেখানে দুঃসংবাদ লেখা।

প্রিমিয়ার লিগ

লিগে ১৭ ম্যাচ শেষ, শীর্ষে থাকা লিভারপুলের সঙ্গে ৭ নম্বরে থাকা এভারটনের ব্যবধান মাত্র ৪ পয়েন্টের। এমনি এমনিই তো ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগকে সবচেয়ে প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ লিগ বলা হয় না! গত এক দশকে শিরোপা গেছে পাঁচটি ভিন্ন দলের কাছে, যদিও ২০১৭-১৮ মৌসুম থেকে লড়াইটা মূলত লিভারপুল আর ম্যানচেস্টার সিটির মধ্যেই ছিল।

স্ট্যাটসপারফর্মের কম্পিউটার হিসাব বলছে, এবার ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগ জেতার ৬৮.৭ শতাংশ সম্ভাবনা ম্যানচেস্টার সিটির। তিন দশকের অপেক্ষার অবসান করে গত মৌসুমে প্রিমিয়ার লিগ জেতা লিভারপুল কম্পিউটারের ভবিষ্যদ্বাণীতে দ্বিতীয় হওয়ার সম্ভাবনাই বেশি। ইয়ুর্গেন ক্লপের দলের শিরোপা জয়ের সম্ভাবনা ১৯.৬ শতাংশ। আর সম্ভাবনার বিচারে এরপরই আছে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড (৮.৬ শতাংশ) ও টটেনহাম হটস্পার (৪.২ শতাংশ)।

বুন্দেসলিগা

প্রিমিয়ার লিগ যেখানে এত এত ভিন্ন শিরোপাজয়ী দেখেছে গত ১০ বছরে, বুন্দেসলিগায় ঠিক তার উল্টো। গত আট মৌসুমেই শিরোপাটা বায়ার্ন মিউনিখের। এই মৌসুমেও ১৫ ম্যাচ শেষে লিগ শীর্ষেই আছে বায়ার্ন। কিন্তু বায়ার্নের (৩৩ পয়েন্ট) সঙ্গে চারে থাকা ডর্টমুন্ডের পয়েন্ট ব্যবধান মাত্র ৫। আক্রমণ ও রক্ষণে দারুণ ক্ষিপ্র লাইপজিগ এই মৌসুমে বায়ার্নকে টেক্কা দেওয়ার সবচেয়ে বড় দাবিদার।

তবে স্ট্যাটসপারফর্মের ভবিষ্যদ্বাণী সত্যি হলে নবমবারের মতো শিরোপার উচ্ছ্বাসে মাতবে বায়ার্নই। কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তার বিশ্লেষণে ৯৩.৮ শতাংশ সম্ভাবনা বায়ার্নের শিরোপা জেতার। লাইপজিগের সম্ভাবনা ৪.৬ শতাংশ। এরপর বরুসিয়া ডর্টমুন্ড—০.৮ শতাংশ!

লা লিগা

দুইয়ে থাকা রিয়াল মাদ্রিদের (১৮ ম্যাচে ৩৭ পয়েন্ট) চেয়ে তিনটি ম্যাচ কম খেলে এগিয়ে ১ পয়েন্ট। তিনে থাকা বার্সার চেয়েও তিন ম্যাচ কম খেলেছে আতলেতিকো মাদ্রিদ, কিন্তু মেসিদের চেয়ে তারা এগিয়ে ৪ পয়েন্টে। লিগে এখন পর্যন্ত ১৫ ম্যাচে গোল খেয়েছে মাত্র ৬টি। জোয়াও ফেলিক্স ও লুইস সুয়ারেজকে নিয়ে দারুণ ছন্দে থাকা আক্রমণভাগ গোল করেছে ২৯টি।

স্প্যানিশ লিগে এবার শিরোপা কি তাহলে আতলেতিকো মাদ্রিদের ঘরেই যাচ্ছে? ২০০৬ সালের পর এবারই প্রথম বড়দিনে লিগের পয়েন্ট তালিকার শীর্ষে বার্সা বা রিয়াল মাদ্রিদের কেউ ছিল না। ২০০৬-এর পর ১৬ মৌসুমের ১৫টিতেই বার্সা নয়তো রিয়াল জিতেছে শিরোপা। ২০১৪ সালে বার্সা থেকে আসা দাভিদ ভিয়াকে নিয়ে শিরোপা জিতেছিল দিয়েগো সিমিওনের আতলেতিকো, এবার বার্সা থেকেই আসা সুয়ারেজকে নিয়ে আবার শিরোপা জিতবে?

স্ট্যাটসপারফর্মের হিসাব তা-ই বলছে। কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা ৬০.২ শতাংশ সম্ভাবনা দেখছে আতলেতিকোর শিরোপা জয়ের। গত মৌসুমে লিগ জেতা জিনেদিন জিদানের রিয়ালের এবার শিরোপা ধরে রাখার সম্ভাবনা ২৬.৩ শতাংশ। মৌসুমে বেশ হতশ্রী শুরু করে গত কিছুদিনে কিছুটা ছন্দে ফেরা বার্সার সম্ভাবনা স্ট্যাটসপারফর্মের বিশ্লেষণে ১৩.২ শতাংশ।

সিরি ‘আ’

অবশেষে সোনালি দিনগুলোর স্মৃতি ফিরিয়ে এসি মিলান ফিরে আসছে? ২০২০ সালটাই মিলানের রেনেসাঁর বছর হয়ে থাকবে। করোনাকে পাশ কাটিয়ে জুনে ফুটবল ফেরার পর লিগে হার বলতে মিলানের অভিজ্ঞতা গত বুধবার জুভেন্টাসের কাছে ৩-১ গোলে হার। এর আগে লিগে ২৭ ম্যাচ অপরাজিত ছিল স্তেফানো পিওলির মিলান, যেটা ১৯৯১-৯৩ মৌসুমের (৫৮ ম্যাচ) কিংবদন্তি আরিগো সাচ্চির মিলানের পর ক্লাবটার ইতিহাসে সবচেয়ে বেশি ম্যাচ টানা অপরাজিত থাকার রেকর্ড।

১৭ ম্যাচে ৪০ পয়েন্ট নিয়ে ২০২০-২১ মৌসুমেও লিগ শীর্ষে আছে মিলান। জুভেন্টাসের টানা দশম শিরোপা জয়ের পথে বাধা হতে পারবে জ্লাতান ইব্রাহিমোভিচের ছোঁয়ায় জেগে ওঠা ক্লাবটা? স্ট্যাটসপারফর্মের হিসাব অবশ্য মিলান ভক্তদের হতাশ করবে।

এসি মিলান, ইন্টার মিলান ও জুভেন্টাস—ইতালিয়ান লিগ এবার তিন দলের লড়াই দেখবে শিরোপা–দৌড়ে। পয়েন্ট তালিকায় এই মুহূর্তে মিলানের পরই আছে ইন্টার (১৭ ম্যাচে ৩৭ পয়েন্ট), জুভেন্টাস অবশ্য দুই ম্যাচ কম খেলে ৩০ পয়েন্ট নিয়ে আছে তালিকার ৫ নম্বরে। স্ট্যাটসপারফর্মের বিশ্লেষণে এই তিন দলের মধ্যে মিলান নয়, ইন্টারের শিরোপা জয়ের সম্ভাবনাই সবচেয়ে বেশি (৩৩.৮ শতাংশ)। মিলানের সম্ভাবনা ২৩.১ শতাংশ আর ক্রিস্টিয়ানো রোনালদোর জুভেন্টাসের সম্ভাবনা ২০.৭ শতাংশ।

লিগ আঁ

পিএসজি ঠিক কী কারণে টমাস টুখেলকে বরখাস্ত করেছে, সে নিয়ে ধোঁয়াশা আছে। তবে অনেক কারণের মধ্যে এবার লিগে বাজে শুরুও একটা কারণ। নতুন কোচ মরিসিও পচেত্তিনো এসে নেইমার-কিলিয়ান এমবাপ্পেদের লিগ জেতাতে পারবেন?

এই মুহূর্তে লিগের ঠিক অর্ধেক (১৯ ম্যাচ) শেষে পিএসজি আছে তালিকার ২ নম্বরে। তবে ব্যবধান অল্প। শীর্ষে থাকা লিওঁর চেয়ে মাত্র ১ পয়েন্ট পিছিয়ে নেইমাররা। তিনে থাকা লিলের পয়েন্ট আবার পিএসজির সমান ৩৯! তিন দলের মধ্যে শেষ পর্যন্ত কে জিতবে লিগ? বিশ্লেষণ কী বলে?

স্ট্যাটসপারফর্মের বিশ্লেষণ বলে, শেষ পর্যন্ত পিএসজিরই শিরোপা জেতার সম্ভাবনা ৭৯.৩ শতাংশ। লিওঁর সম্ভাবনা ১৭.৯ শতাংশ। লিলের (০.৮ শতাংশ) চেয়ে বরং এই মুহূর্তে পয়েন্ট তালিকার ছয়ে থাকা মার্শেইয়ের (১.৮ শতাংশ) সম্ভাবনাই বেশি দেখে স্ট্যাটসপারফর্ম।

NO COMMENTS

LEAVE A REPLY